বৃহস্পতিবার   ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯   আশ্বিন ৪ ১৪২৬   ১৯ মুহররম ১৪৪১

২২৩

গর্ভ ভাড়া করে সন্তান নিয়েছেন যেসব বলিউড তারকা

প্রকাশিত: ২৮ জানুয়ারি ২০১৯  

২০১৬ সালে লোকসভায় পাশ হওয়া বিল অনুযায়ী, ভারতে বিদেশি, সিঙ্গেল, সমকামী বা ‘লিভ-ইন পার্টনারদের’ সারোগেসির মাধ্যমে সন্তান নেওয়া অবৈধ। তবে বিলটি এখনও আইন হয়নি বলে বলিউডের বেশ কয়েকজন তারকা ইতোমধ্যে গর্ভ ভাড়া করে সন্তান নিয়েছেন।

করন জোহর

চলচ্চিত্র নির্মাতা করন জোহর নিজেই জানিয়েছেন দুই সন্তানের ‘বাবা’ হওয়ার খবর। তবে বিপরীত লিঙ্গের কাউকে বিয়ে করে তিনি জনক হননি। তার পক্ষে তা হয়ত সম্ভবও নয়, কারণ ৪৫ বছর বয়সি এই পরিচালক সমকামী। সারোগেসি বিল ভারতের রাজ্যসভায় পাশ হলেই তা আইনের মর্যাদা পাবে। আইন হয়ে গেলে করন জোহর এভাবে সন্তান নিতে পারতেন না।

 

তুষার কাপুর

বলিউডের সাবেক জনপ্রিয় নায়ক জিতেন্দ্র’র ছেলে তুষার কাপুর। তিনিও হিন্দি ছবির নায়ক। তিনিও বিয়ে না করেই বাবা হয়েছেন। প্রস্তাবিত আইনে ‘সারোগেট মাদার’-এর সহায়তায় ‘সিঙ্গেল ফাদার’ হওয়াও অবৈধ। কিন্তু তুষারও সন্তান নিয়েছেন আইন হওয়ার আগে।

শাহরুখ খান

‘বলিউড কিং’ শাহরুখ খান আর তার স্ত্রী গৌরী খানের এমনিতেই দুই সন্তান ছিল। তারপরও ২০১৩ সালে তারা গর্ভ ভাড়া করে তৃতীয় সন্তান নেন। সেই সন্তানের নাম আবরাম। সন্তান নিতে শারীরিকভাবে সক্ষম কোনো দম্পতির সারোগেট মাদারের মাধ্যমে সন্তান নেওয়া প্রস্তাবিত আইন অনুযায়ী অবৈধ। সারোগেসি বিলটি এখনও আইন হয়নি বলেই কিং খানও গর্ভ ভাড়া নিয়ে আবরামের বাবা হতে পেরেছেন।

আমির খান

আমির খান বিবাহিত এবং তিনিও শারীরিকভাবে সন্তান জন্ম দেওয়ায় সক্ষম। আগের স্ত্রীর ঘরে তার দু’টি সন্তান রয়েছে।

ফলে প্রস্তাবিত আইন অনুযায়ী তারও ‘সারোগেট চাইল্ড’ নিতে পারার কথা নয়। কিন্তু বর্তমান স্ত্রী কিরণ রাও একাধিকবার গর্ভ ধারণে ব্যর্থ হওয়ায় ২০১১ সালে আমিরও সন্তান নিয়েছেন এভাবে। তাদের ‘সারোগেট চাইল্ড’-এর নাম আজাদ।

সোহেল খান

সালমান খানের ছোট ভাই সোহেল খান সারোগেট মাদারের মাধ্যমে জনক হয়েছেন ২০০০ সালে। এর আগেও তার দু’টি সন্তান ছিল। স্ত্রী সীমা খানের গর্ভের দুই সন্তানের পরও গর্ভ ভাড়া করে নির্ভানাকে পান তারা।

আজকের নড়াইল
আজকের নড়াইল